মঙ্গলবার, ০৫ মার্চ ২০২৪, ১০:৩১ পূর্বাহ্ন

সোনায় মোড়ানো হোটেল

  • আপডেট সময় শনিবার, ৬ জানুয়ারি, ২০২৪

সোনায় মোড়ানো হোটেলের নাম শুনেছেন কখনো? সেটি দেখতেই বা কেমন? এমন অনেক প্রশ্নই ঘুরপাক খেতে পারে পাঠকের মনে। তবে এমনটিই ঘটেছে ভিয়েতনামে। সেখানেই তৈরি করা হয়েছে সোনায় মোড়ানো হোটেল। সম্প্রতি হোটেলটি খুলে দেওয়া হয়েছে পর্যটক বা দর্শনার্থীদের জন্য।

জানা যায়, বিশ্বের প্রথম সোনায় মোড়ানো হোটেলটি ভিয়েতনামে অবস্থিত। দেশটির রাজধানী হানোইতে তৈরি করা হয়েছে এ গোল্ড প্লেটেড হোটেলটি। হোটেলটির নাম রাখা হয়েছে ‘ডলস হানোই গোল্ডেন লেক’। ২০০৯ সালে এটির নির্মাণ কাজ শুরু হয়। পুরোপুরি শেষ করতে এখনো কিছু দিন লাগবে। কিন্তু তার আগেই কয়েক বছর ধরে পর্যটকরা হোটেলের সামনে ভিড় করছেন।

হোটেলটি হ্যানয়ের গিয়াং ভো লেকের একেবারে কাছেই তৈরি করা হয়েছে। ভিয়েতনামের প্রসিদ্ধ হোয়া বিন গ্রুপই তৈরি করেছে এটি। হোটেলটির ম্যানেজমেন্টের দায়িত্ব সামলাচ্ছে আমেরিকান সংস্থা উইনধাম হোটেল গ্রুপ। হোটেলটি ইতোমধ্যেই দেশটির অন্যতম ট্যুরিস্ট আকর্ষণ হয়ে দাঁড়িয়েছে।

সূত্র জানায়, হোটেলটি তৈরি করতে খরচ হয়েছে ২০০ মিলিয়ন মার্কিন ডলার। সবচেয়ে বেশি আকর্ষণীয় হচ্ছে এর ভেতরের সাজসজ্জা বা কারুকাজ। হোটেলটির ইন্টেরিয়র এবং এক্সটিরিয়র দুই ক্ষেত্রেই ব্যবহার করা হয়েছে ২৪ ক্যারেট সোনা। এমনকি হোটেলের দরজা, জানলা, টয়লেট সিট, লবি, ইনফিনিটি পুল, কক্ষ, বাথরুমের শাওয়ারের মাথাও সোনায় মোড়ানো।

কর্তৃপক্ষ জানায়, হোটেলটি মোট ২৫ তলা। এখানে থাকতে হলে দিতে হবে ন্যূনতম ২৫০ মার্কিন ডলার। হোটেলে কোনো অতিথি কফি খেতে চাইলে তাকে সোনার কাপে কফি পরিবেশন করা হবে। এ ছাড়া কাপ থেকে শুরু করে খাবার-দাবারও সোনার পাত্রেই পরিবেশন করা হবে।

হোটেলের ব্যবস্থাপক জানান, হোটেলের ভেতরে-বাইরে ৫০০০ বর্গমিটারের সিরামিক টাইলসও মোড়ানো হয়েছে সোনা দিয়ে। হোটেলের ইমিউনিটি পুলটি রয়েছে রুফটপে। তবে অতিথিরা চাইলে হোটেলের অ্যাপার্টমেন্ট ভাড়া করতে পারবেন। তবে সেই অ্যাপার্টমেন্ট ভাড়া হবে ৬৫০০ মার্কিন ডলার।

শেয়ার করুন

এ জাতীয় আরো খবর

ভ্রমন সম্পর্কিত সকল নিউজ এবং সব ধরনের তথ্য সবার আগে পেতে, আমাদের সাথে থাকুন এবং আমাদেরকে ফলো করে রাখুন।

© All rights reserved © 2020 cholojaai.net
Theme Customized By ThemesBazar.Com