বৃহস্পতিবার, ২০ জুন ২০২৪, ০২:১৯ অপরাহ্ন

ঘুরে আসুন সার্বিয়া

  • আপডেট সময় বুধবার, ৫ মে, ২০২১

আধুনিক প্রজন্মের যেসব মানুষ ইতিহাসের ব্যাপারে সচেতন তারা সার্বিয়া ভ্রমণ করে থাকেন। ইতিহাসসমৃদ্ধ সার্বিয়ায় বহু ঐতিহাসিক স্থাপনা রয়েছে। এসব ঐতিহাসিক স্থাপনা দর্শনার্থীদের কাছে ব্যাপক জনপ্রিয়। বেশিরভাগ মানুষ প্রথম বিশ্বযুদ্ধে সার্বিয়ার সংশ্লিষ্টতার বিষয়ে জানেন। ১৯১৪ সালের ১৮ জুন অস্ট্রিয়ার যুবরাজ নিহত হওয়ার পর সার্বিয়া ২৩ জুলাই অস্ট্রিয়ার বিরুদ্ধে এক চরমপত্র ঘোষণা করে। এতে অস্ট্রিয়া ক্ষেপে গেলে ২৮ জুলাই সার্বিয়ার বিরুদ্ধে যুদ্ধ ঘোষণা করে। আজ বলছি সার্বিয়ার দর্শনীয় স্থান সম্পর্কে।

১. বেলগ্রেড

বেলগ্রেড সার্বিয়ার রাজধানী এবং সবচেয়ে বড় শহর। দানিয়ুব ও সাভা নদীর তীরে অবস্থিত এই শহরে অসংখ্য দর্শনীয় স্থান রয়েছে। এই শহরের ইতিহাস অসংখ্য যুদ্ধের সঙ্গে সম্পর্কিত। তবে আজকের পৃথিবীতে এই শহর শান্তিপূর্ণ শহর হিসেবে পরিগণিত। বেলগ্রেড দুর্গ এই শহরের অত্যন্ত আকর্ষণীয় স্থান।

২. নোভি স্যাড

দানিয়ুব নদীর তীরে অবস্থিত নোভি স্যাড শহর দর্শনার্থীদের কাছে মনোমুগ্ধকর একটি জায়গা হিসেবে পরিচিত। এই শহরে রয়েছে সমুদ্রসৈকত। নোভি স্যাড শহর সার্বিয়ার দ্বিতীয় বড় শহর হিসেবে পরিচিত। সপ্তদশ শতকে এই শহরে ইউরোপীয় প্রথম বসতি স্থাপন করে। এই শহরে অসংখ্য পার্ক রয়েছে। এছাড়া এই শহরে সুরক্ষিত দুর্গ ও সুশোভিত গীর্জা রয়েছে।

৩. নিস

সার্বিয়ার তৃতীয় বড় শহর নিস। ইউরোপ এবং বলকান অঞ্চলে সবচেয়ে প্রাচীন শহর এটি। এই  শহরে বসতি গড়ে ওঠে ২৭৯ খ্রিস্টাব্দে। কনস্টান্টিনোপল সাম্রাজ্যের প্রতিষ্ঠাতা সম্রাট কনস্ট্যান্টিন এই শহরে জন্মগ্রহণ করেন। শহরের মধ্যভাগে কনস্ট্যান্টিনকে স্মরণ করে একটি সৌধ নির্মাণ করা হয়েছে। এই শহরের মধ্যভাগে তুর্কীদের দ্বারা অষ্টাদশ শতাব্দিতে নির্মিত একটি দুর্গ দর্শনার্থীদের আনন্দ দেয়।

৪. প্রিজরেন

সার্বিয়ার চতুর্থ বড় শহর প্রিজরেন। এই শহরের সবচেয়ে বড় আকর্ষণ প্রিজরেন দুর্গ। এই দুর্গ তুরস্কের অটোমান সুলতানদের শাসনামলে নির্মাণ করা হয়েছিলো। দর্শনার্থীরা প্রিজরেন দুর্গের স্থাপত্যে মুগ্ধ হয়।

৫. সুবোটিকা

সার্বিয়ার পঞ্চম বড় শহর সুবোটিকা। এই শহরে ক্যাথলিক খ্রিস্ট ধর্মাবলম্বীরা বেশি বসবাস করে। গীর্জার পাশাপাশি এই শহরে ইহুদি ধর্মাবলম্বীদের উপাসনালয় সিনেগগ রয়েছে। এই শহরের বিখ্যাত গীর্জার নাম সেন্ট থেরেসা অব অ্যাভিলা যা ১৭৯৭ সালে নির্মিত হয়। এই শহরে অসংখ্য ক্যাফে রয়েছে এবং এই শহরে ইউরোপের মধ্যে সবচেয়ে বড় বাজার রয়েছে।

শেয়ার করুন

এ জাতীয় আরো খবর

ভ্রমন সম্পর্কিত সকল নিউজ এবং সব ধরনের তথ্য সবার আগে পেতে, আমাদের সাথে থাকুন এবং আমাদেরকে ফলো করে রাখুন।

© All rights reserved © 2020 cholojaai.net
Theme Customized By ThemesBazar.Com