1. b_f_haque70@yahoo.com : admin2021 :
  2. editor@cholojaai.net : cholo jaai : cholo jaai
ইস্তাম্বুল ইন্টারন্যাশনাল এয়ারপোর্ট
শনিবার, ২৪ জুলাই ২০২১, ০২:৫৫ অপরাহ্ন

ইস্তাম্বুল ইন্টারন্যাশনাল এয়ারপোর্ট

চলযাই ডেস্ক :
  • আপডেট সময় সোমবার, ১২ জুলাই, ২০২১

বর্তমান বিশ্বে সবচেয়ে বড় বিমানবন্দর হচ্ছে ইস্তাম্বুল এয়ারপোর্ট। ২০১৩ সালে ইস্তাম্বুল শহর থেকে ৩৫ কিমি দূরে ১৮৩০ একর জায়গার উপর এয়ারপোর্টটি তৈরী হয়েছে। টানা তিনবছর ৬ মাস বিশাল কর্মযজ্ঞের মাধ্যমে সম্পন্ন হয় এয়াপোর্টটির নির্মান কাজ। এয়ারপোর্ট তৈরীতে খরচ হয়েছে ১২ বিলিয়ন মার্কিন ডলার।

এটি পৃথিবীর সবচেয়ে বড় গ্রীন এয়ারপোর্ট। ছবির মতো চকচকে করে গড়ে তোলা হয়েছে বিমানবন্দরটিকে। পৃথিবীর সবচেয়ে বেশী প্যাসেঞ্জার টার্মিনাল আছে বিমানবন্দরটিতে। যার আয়তন ১.৪ মিলিয়ন বর্গমিটার। এর বাইরে বিমানবন্দরটির আয়তন হচ্ছে ৭৬.৫ মিলিয়ন বর্গমিটার। বিমানবন্দরটি জুড়ে রয়েছে ৭টি টার্মিনাল। সব টার্মিনাল ২৪ ঘন্টাই খোলা থাকে এর মধ্যে ৫৯ নং গেটটি টার্কিস এয়ারলাইন্সের বিজনেস ক্লাসের যাত্রীদের জন্য।

ইস্তাম্বুল এয়ারপোর্টের কন্ট্রোল টাওয়ারটি প্রায় পাঁচ হাজার মিটার জায়গা জুড়ে তৈরী করা। হয়েছে। ৯০ মিটার উচু এই কন্ট্রোল টাওয়ারটিও যথেষ্ঠ পরিমানে আকর্ষনীয়।

ইস্তাম্বুল এয়ারপোর্ট টার্কিস এয়ারলাইন্সের হাব হিসেবে গড়ে উঠেছে। পৃথিবীর সবচেয়ে বড় এই এয়ারপোর্টটিতে ৫৬৬টি এন্ট্রি গেট রয়েছে। সাথে রয়েছে অনেকগুলো সেল্ফ চেকইন কাউন্টার। যে চেকইন কাউন্টারে আপনি নিজেই চেকইন করে নিতে পারবেন। বিমানবন্দরটির সক্ষমতা অনেক বেশী। আপাতত এই বিমানবন্দরে ৯০ থেকে ১০০ মিলিয়ন যাত্রী চলাচল করে। টার্গেট রয়েছে ২০০ মিলিয়ন যা পৃথিবীর ইতিহাসে একটি মাইলফলক হতে যাচ্ছে।

বর্তমানে এয়ারপোর্টে চালু আছে মাত্র ২টি রানওয়ে। তবে খুব শিঘ্রই ৬টি রানওয়ে চালু হতে যাচ্ছে। আছে ২২৮টি পাসপোর্ট কন্ট্রোল পয়েন্ট যেখানে দিনরাত ২৪ ঘন্টা কাজ করে যাচ্ছে।আয়তনের দিক দিয়ে বিমানবন্দরটি এতই বড় যে ২/১ দিন আপনি বিমানবন্দরটি ঘুরে দেখতে পারবেন না। বিমানবন্দরটি ঘুরে দেখার জন্য ছোট ছোট গাড়ি রয়েছে যা দিয়ে আপনি বিমানবন্দটি ঘুরে দেখতে পারবেন। বোর্ডিং এর জন্য ব্রিজ রয়েছে ১৪৩টি।একসাথে ৩৭১টি বিমান পার্কিং করতে পারে বিমান বন্দর জুড়ে।

পৃথিবীর যে কোন বিমানবন্দরের চাইতে এখানকার সিকিউরিটি ব্যবস্থা অনেক উন্নত। বিমানবন্দ জুড়ে রয়েছে ৩৫০০ জন সিকিউরিটি পার্সোনাল, ৪৫০ জন ইমিগ্রেশন অফিসার, ১৮৫০ জন পুলিশ অফিসার, যারা রাতদিন ২৪ ঘন্টা এয়ারপোর্টটিতে কর্মরত থাকেন। প্রতি ৬০ মিটারে একটি সিসি টিভি ক্যামেরা আছে। পুরো এয়ারপোর্ট জুড়ে এ ব্যবস্থা যা কিনা একটা কন্ট্রোল রুম থেকে ২৪ ঘন্টা মনিটর করা হচ্ছে।

যাত্রীদের সুবিধার্থে প্রায় ৭০ হাজার গাড়ী পার্কিং এর সুযোগ রাখা হয়েছে।

 

শেয়ার করুন

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

এ জাতীয় আরো খবর
© All rights reserved © 2020 cholojaai.net
Theme Dwonload From ThemesBazar.Com